1. muktokotha@gmail.com : Harunur Rashid : Harunur Rashid
  2. isaque@hotmail.co.uk : Harun :
  3. harunurrashid@hotmail.com : Muktokotha :
'সংঘাত নয় ঐক্যের বাংলাদেশ চাই', বিশ্ব প্রবীণ দিবস ও আলোয়-আলো মেলা - মুক্তকথা
শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ১২:৪৯ অপরাহ্ন

‘সংঘাত নয় ঐক্যের বাংলাদেশ চাই’, বিশ্ব প্রবীণ দিবস ও আলোয়-আলো মেলা

শ্রীমঙ্গল(মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি ও বিশেষ প্রতিনিধি॥
  • প্রকাশকাল : সোমবার, ২ অক্টোবর, ২০২৩
  • ৩৩৮ পড়া হয়েছে

‘সহিংসতা কে না বলুন’ ‘সংঘাত নয় ঐক্যের বাংলাদেশ চাই’ শ্রীমঙ্গলে আন্তর্জাতিক অহিংস দিবসের মানববন্ধন

‘সহিংসতা কে না বলুন’ ‘সংঘাত নয় ঐক্যের বাংলাদেশ চাই’ এই শ্লোগান নিয়ে মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলে আন্তর্জাতিক অহিংস দিবস উপলক্ষে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

গতকাল সোমবার (২ অক্টোবর) সকাল ১১ টায় শ্রীমঙ্গল চৌমহনা চত্বরে দি হাঙ্গার প্রজেক্ট বাংলাদেশের সহযোগিতায় ও স্থানীয় পিস ফ্যাসিলিটেট গ্রুপ ( পিএফজি) শ্রীমঙ্গলের সহযোগিতায় এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

পিস ফ্যাসিলিটেট গ্রুপ ( পিএফজি) শ্রীমঙ্গলের সমন্বয়কারী সাংবাদিক সৈয়দ ছায়েদ আহমেদ এর সঞ্চালনায় মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশের ওয়াকার্স পার্টির মৌলভীবাজার জেলার সম্পাদক মন্ডলী সদস্য সাংবাদিক কলামিস্ট সৈয়দ আমিরুজ্জামান, উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ (দুপ্রক) শ্রীমঙ্গলে সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব আব্দুর রউফ তালুকদার, উপজেলা জাসদ সভাপতি ও পিএফজি এ্যাম্বাসেডর হাজী এলেমান কবির, উপজেলা বিএনপির সহ-সভাপতি পিএফজি সদস্য মোহাম্মদ শামীম আহমদ, পৌর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ও এ্যাম্বাসেডর মোহাম্মদ জহির উদ্দিন শামীম, এ্যাম্বাসেডর কাজী আছমা আক্তার, সাবেক ছাত্রনেতা ও কমিউনিস্ট পার্টি শ্রীমঙ্গলের সদস্য বেলাল হোসেন রাজু, ফারিয়া শ্রীমঙ্গল উপজেলা সভাপতি দেবব্রত দত্ত হাবুল, শব্দ শৈলী প্রশিক্ষক ও পরিচালক ও কমিউনিস্ট পার্টির শ্রীমঙ্গলের সদস্য বিকাল দাশ বাপন প্রমুখ।

মানববন্ধনে পিএফজি সদস্য ছাড়াও সাংবাদিক, শিক্ষক, রাজনৈতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও চাকুরীজীবিসহ বিভিন্ন শ্রেণি পেশার লোকজন উপস্থিত ছিলেন।

শ্রীমঙ্গলে বিশ্ব প্রবীণ দিবস-২০২৩ উপলক্ষে ‘বৈঠকী আড্ডা’ অনুষ্ঠিত

শ্রীমঙ্গলে বিশ্ব প্রবীণ দিবস-২০২৩ উপলক্ষে প্রবীণ হিতৈষী সংঘ শ্রীমঙ্গলের আয়োজনে ‘বৈঠকী আড্ডা’ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

আজ ২রা অক্টোবর সোমবার সন্ধ্যায় শ্রীমঙ্গল জেলা পরিষদ আধুনিক ডাক বাংলোর কনফারেন্স হলে বিশ্ব প্রবীণ দিবস উপলক্ষে শ্রীমঙ্গল প্রবীণ হিতৈষী সংঘের আয়োজনে প্রবীণদের নিয়ে ‘বৈঠকী আড্ডা’ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

 

 

প্রবীণ নাগরিক ও প্রবীণ হিতৈষী সংঘের সহ-সভাপতি আব্দুর রউফ তালুকদারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রবীণ নাগরিকদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ইউসুফ আলী, উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি মোঃ শমশের খাঁন, বিশিষ্ট সমাজসেবক অজয় কুমার দেব, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মোঃ সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী হারুন, সাবেক ব্যাংকার সমীরণ সরকার, জিতেন্দ্র চন্দ্র দেব, শিক্ষিকা রহিমা বেগম, সমাজসেবক বিজন দেব, প্রকৌশলী তুষার কান্তি সরকার, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মোঃ মোজাম্মেল হক, সাংস্কৃতিক সংগঠক শ্যামল আচার্য, নাট্যকর্মী রূপক দত্ত, ক্রীড়াবিদ মাহবুব আহমেদ রুমন প্রমুখ।

বৈঠকে প্রবীণ হিতৈষী সংঘের সাধারণ সম্পাদক মোঃ কাওছার ইকবাল প্রবীণদের বৃদ্ধ বয়সে নানা সমস্যা ও প্রবীণদের সুযোগ-সুবিধা বা তাদের জন্য করণীয় বিভিন্ন দিক তুলে ধরে বলেন,’একাকিত্ব ববয়স্কদের স্বাস্থ্যের উপর ভীষণ প্রভাব ফেলে। একটি ভালো সামাজিক জীবন বয়স্কদের মানসিক শারীরিক এবং সুস্বাস্থ্যের জন্য অপরিহার্য। যেমন, পার্কে বয়স্ক মানুষের দল তৈরী, সমবয়সীদের সঙ্গে খেলাধুলা, একত্রে বসে আড্ডা দেওয়া, খবরের কাগজ পড়া, আলাপচারিতায় সময় কাটানো ইত্যাদে। এর ফলে যা হয় তা হল, প্রবীণরা নিজেদের সক্রিয় রাখতে অনুপ্রাণিত হোন। আমরা শ্রীমঙ্গলের সচেতন মহল ঐক্যবদ্ধভাবে সবার সহযোগিতায় এর অনেকটাই সমাধান করতে পারবো বলে বিশ্বাস করি।

উল্লেখ্য, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেশের প্রবীণ নাগরিকদের সামাজিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য বাংলাদেশের সংবিধানে ১৫(ঘ) অনুচ্ছেদ সন্নিবেশ করেন।

দিবসটির এবারের প্রতিপাদ্য ‘সর্বজনীন মানবাধিকার ঘোষণায় প্রবীণদের জন্যে প্রদত্ত প্রতিশ্রুতি পূরণে প্রজন্মের ভূমিকা।’ এই লক্ষ্যকে সামনে রেখে সর্বজনীন কার্যক্রমকে জোরদার করতে বৈঠকী আড্ডায় সিদ্ধান্ত গৃহিত হয় যে, দ্রুততম সময়ের মধ্যে বৃহৎ পরিষরে সভা আহ্বান করা এবং প্রবীণ নাগরিকদের কল্যামূখী বিভিন্ন উদ্যোগ গ্রহণ করে যাতে পরবর্তীতে এই কার্যক্রকে এগিয়ে নেয়া যায়।

শ্রীমঙ্গলে আলোয়-আলো মেলার উদ্বোধন

শ্রীমঙ্গলে ‘এডুকো বাংলাদেশ’ ও সহযোগী সংস্থা, এমসিডা, প্রচেষ্ঠা, বিটিএস এবং আইডিয়া’র সহযোগিতায় শ্রীমঙ্গলে উপজেলা পর্যায়ে সোমবার(২ অক্টোবর) আলোয়-আলো মেলা উদ্বোধন করা হয়।

 

 

আনুষ্ঠানিকভাবে এই মেলার শুভ উদ্বোধন করেন শ্রীমঙ্গল উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ভানু লাল রায়। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন শ্রীমঙ্গল উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মিতালী দত্ত, এডুকোর হেড অফিস ও ভারত প্রতিনিধি, জেলা শিক্ষা অফিসার, চা বাগান ব্যবস্থাপনার প্রতিনিধি, এনজিও প্রতিনিধি, প্রকল্পের সুবিধাভোগী, পঞ্চায়েত প্রতিনিধি, এলজিআই প্রতিনিধি এবং মিডিয়াসহ বিভিন্ন পর্যায়ের ব্যক্তিবর্গ।

মেলায় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, উচ্চ বিদ্যালয় এবং শিশুকাননের স্টল প্রদর্শন এবং সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে এডুকোর সকল কার্যক্রম ও সফলতা তুলে ধরা হয়।

সংস্থাটি চা বাগান ও হাওরে বেড়ে ওঠা শিশুদের জীবন মান উন্নয়নের লক্ষ্যে ও তাদেরকে শিক্ষার সাথে সম্পৃক্ত করার উদ্দেশ্য ২০১৯ সাল থেকে মৌলভীবাজার জেলার শ্রীমঙ্গল ও কমলগঞ্জের ৩০টি চা বাগান ও ২ টি হাওর এলাকায় কাজ করছে বলে জানা যায়। চা-বাগান কর্তৃপক্ষ ও স্থানীয় প্রশাসনের সহযোগিতায় সফলতার সাথে আলোয় আলো প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করে আসছে।

আলোয়-আলো প্রকল্পের মাধ্যমে উল্লেখিত কর্ম এলাকায় শিশু অধিকার নিশ্চিত করতে সমন্বিত উন্নয়ন কর্মসূচি পদ্ধতি যেমন-ইসিডি, ডে কেয়ার, প্রাক-প্রাথমিক ও প্রাথমিক শিক্ষা কর্মসূচি, লাইভলিহুড কর্মসূচি এবং কিশোর ও যুব উন্নয়ন কর্মসূচি বাস্তবায়ন করছে।

এ জাতীয় সংবাদ

তারকা বিনোদন ২ গীতাঞ্জলী মিশ্র

বাংলা দেশের পাখী

বাংগালী জীবন ও মূল ধারার সংস্কৃতি

আসছে কিছু দেখতে থাকুন

© All rights reserved © 2021 muktokotha
Customized BY KINE IT